ঢাকা ০৫:৫৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::

রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১০:১৪:২৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২১ মার্চ ২০২২ ২৩ বার পড়া হয়েছে
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

এম এম মামুন, রাজশাহী ব্যুরো:
রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল রোববার দুদকের রাজশাহী সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের মামলাটি করা হয়েছে। মামলার বাদী দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সুদীপ কুমার চৌধুরী।

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, আবুল কালাম আজাদ তাঁর দাখিলকৃত আয় বিবরণীতে ২২ লাখ ৮ হাজার ৮৬৬ টাকার সম্পদ গোপন করে তথ্য দিয়েছেন। এই সম্পদ তার আয়ের উৎসের সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ নয়। এছাড়া তিনি ৪৩ লাখ ৯৩ হাজার ৪৯৭ টাকার সম্পদ অর্জন করে ভোগ দখলে রেখেছেন। তার এই অপরাধলব্ধ আয়ের অবৈধ উৎস, প্রকৃতি, অবস্থান, মালিকানা ও নিয়ন্ত্রণের শাস্তিযোগ্য অপরাধ দুদকের অনুসন্ধান ও যাচাইকালে প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে।

মামলার বাদী দুদক কর্মকর্তা সুদীপ কুমার চৌধুরী বলেন, আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন এবং মানিলন্ডারিং প্রতিরোধ আইনে মামলা করা হয়েছে। কমিশনের অনুমতি সাপেক্ষেই রোববার মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। এ বিষয়ে কথা বলতে আবুল কালাম আজাদের মোবাইল নম্বরে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে সেটি বন্ধ পাওয়া গেছে। তাই তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

আপডেট সময় : ১০:১৪:২৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২১ মার্চ ২০২২

রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

এম এম মামুন, রাজশাহী ব্যুরো:
রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল রোববার দুদকের রাজশাহী সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের মামলাটি করা হয়েছে। মামলার বাদী দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সুদীপ কুমার চৌধুরী।

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, আবুল কালাম আজাদ তাঁর দাখিলকৃত আয় বিবরণীতে ২২ লাখ ৮ হাজার ৮৬৬ টাকার সম্পদ গোপন করে তথ্য দিয়েছেন। এই সম্পদ তার আয়ের উৎসের সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ নয়। এছাড়া তিনি ৪৩ লাখ ৯৩ হাজার ৪৯৭ টাকার সম্পদ অর্জন করে ভোগ দখলে রেখেছেন। তার এই অপরাধলব্ধ আয়ের অবৈধ উৎস, প্রকৃতি, অবস্থান, মালিকানা ও নিয়ন্ত্রণের শাস্তিযোগ্য অপরাধ দুদকের অনুসন্ধান ও যাচাইকালে প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে।

মামলার বাদী দুদক কর্মকর্তা সুদীপ কুমার চৌধুরী বলেন, আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন এবং মানিলন্ডারিং প্রতিরোধ আইনে মামলা করা হয়েছে। কমিশনের অনুমতি সাপেক্ষেই রোববার মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। এ বিষয়ে কথা বলতে আবুল কালাম আজাদের মোবাইল নম্বরে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে সেটি বন্ধ পাওয়া গেছে। তাই তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।