ঢাকা ০২:২৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::

বাঘায় ভিক্ষুককে ঘর উপহার দিলেন কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৩:২০:১৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২ ১৯ বার পড়া হয়েছে
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

সাইদুল ইসলম, বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধিঃ
রাজশাহীর বাঘায় ভিক্ষুককে ঘর উপহার দিলেন কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ। এখন থেকে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তার করে দেওয়া নতুন ঘরে বাঁকি জীবনটা কাটাবেন ষাটয়োর্ধ্ব বিধবা ভিক্ষুক রাবিয়া বেওয়া। এর আগে থাকতেন নাতির ঘরের বারান্দায়।

রোববার (৬ ফেব্রুয়ারী) দুপুরে নতুন সেই ঘরের চাবি রাবিয়া বেওয়ার হাতে তুলে দেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা নাফিজ শরিফ ও উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা মিলন কুমার দাস। বিধবা রাবিয়া বেওয়া উপজেলার আমোদপুর গ্রামের প্রয়াত আলীমুদ্দিনের স্ত্রী।

জানা যায়, স্বামীর মৃত্যুর পর নাতির ঘরের বারান্দায় জীবন কাটাতেন বিধবা রাবেয়া বেওয়া। জীবন জীবিকার উৎস্য ছিল ভিক্ষাবৃত্তি আর সরকারের দেওয়া বয়স্কভাতা। স্থানীয় ইউপি সদস্য রেজাউল করিমের মাধ্যমে বিধবা ভিক্ষুক রাবিয়া বেওয়ার মানবেতর জীবন যাপনের বিষয়টি জানতে পারেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান। পরে রাবিয়া বেওয়ার খোঁজ খবর নিয়ে, তাঁরই নাতী লালন উদ্দিনের বাড়ির পাশে সামান্য একটু জায়গা নিয়ে একটি ঘর তুলে দেয়ার ব্যবস্থা করেন। একই সাথে তাঁর নানীর খাবারসহ প্রয়োজনীয় খরচেরও ব্যবস্থা করে দেন। জীবনের শেষ প্রান্তে এসে মাথা গুজার ঠাঁই পেয়ে ভিক্ষা বৃত্তি করবেনা বলে জানান বিধবা ভিক্ষুক রাবিয়া বেওয়া।

বাজু বাঘা ইউপি সদস্য রেজাউল করিম বলেন, কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান প্রমান করলেন, মানুষ মানুষের জন্য। তিনি সমাজের একটা দৃষ্টান্ত।

কৃষি কৃষিকর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান বলেন, মানবসেবা হলো সব চেয়ে বড় সেবা। আশ্রয়হীনদের ঘর দেওয়া সহ ভিক্ষুকদের কর্মসংস্থান ও পূর্নবাসন কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী। আমি তাঁর এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে একজন ভিক্ষুককে সেবা করার সুযোগ পেয়েছি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

বাঘায় ভিক্ষুককে ঘর উপহার দিলেন কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ

আপডেট সময় : ০৩:২০:১৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২

সাইদুল ইসলম, বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধিঃ
রাজশাহীর বাঘায় ভিক্ষুককে ঘর উপহার দিলেন কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ। এখন থেকে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তার করে দেওয়া নতুন ঘরে বাঁকি জীবনটা কাটাবেন ষাটয়োর্ধ্ব বিধবা ভিক্ষুক রাবিয়া বেওয়া। এর আগে থাকতেন নাতির ঘরের বারান্দায়।

রোববার (৬ ফেব্রুয়ারী) দুপুরে নতুন সেই ঘরের চাবি রাবিয়া বেওয়ার হাতে তুলে দেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা নাফিজ শরিফ ও উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা মিলন কুমার দাস। বিধবা রাবিয়া বেওয়া উপজেলার আমোদপুর গ্রামের প্রয়াত আলীমুদ্দিনের স্ত্রী।

জানা যায়, স্বামীর মৃত্যুর পর নাতির ঘরের বারান্দায় জীবন কাটাতেন বিধবা রাবেয়া বেওয়া। জীবন জীবিকার উৎস্য ছিল ভিক্ষাবৃত্তি আর সরকারের দেওয়া বয়স্কভাতা। স্থানীয় ইউপি সদস্য রেজাউল করিমের মাধ্যমে বিধবা ভিক্ষুক রাবিয়া বেওয়ার মানবেতর জীবন যাপনের বিষয়টি জানতে পারেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান। পরে রাবিয়া বেওয়ার খোঁজ খবর নিয়ে, তাঁরই নাতী লালন উদ্দিনের বাড়ির পাশে সামান্য একটু জায়গা নিয়ে একটি ঘর তুলে দেয়ার ব্যবস্থা করেন। একই সাথে তাঁর নানীর খাবারসহ প্রয়োজনীয় খরচেরও ব্যবস্থা করে দেন। জীবনের শেষ প্রান্তে এসে মাথা গুজার ঠাঁই পেয়ে ভিক্ষা বৃত্তি করবেনা বলে জানান বিধবা ভিক্ষুক রাবিয়া বেওয়া।

বাজু বাঘা ইউপি সদস্য রেজাউল করিম বলেন, কৃষি কর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান প্রমান করলেন, মানুষ মানুষের জন্য। তিনি সমাজের একটা দৃষ্টান্ত।

কৃষি কৃষিকর্মকর্তা শফিউল্লাহ সুলতান বলেন, মানবসেবা হলো সব চেয়ে বড় সেবা। আশ্রয়হীনদের ঘর দেওয়া সহ ভিক্ষুকদের কর্মসংস্থান ও পূর্নবাসন কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী। আমি তাঁর এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে একজন ভিক্ষুককে সেবা করার সুযোগ পেয়েছি।